কমিউনিটি পুলিশিং ডে পালিত

কমিউনিটি পুলিশিং ডে পালিত
BMP HQ MEDIA [31 OCTOBER 2020]
“মুজিববর্ষের মূলমন্ত্র -কমিউনিটি পুলিশিং সর্বত্র” এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে ৩১ অক্টোবর ২০২০ সারা দেশব্যাপী কমিউনিটি পুলিশিং ডে পালিত হয়।
তারই ধারাবাহিকতায়, ৩১ অক্টোবর ২০২০ সকাল ১০ঃ৩০ ঘটিকায় অশ্বিনী কুমার টাউন হল বরিশালে, বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ কর্তৃক “কমিউনিটি সমাবেশ ও মতবিনিময় সভা” অনুষ্ঠিত হয় ।
উক্ত সমাবেশ ও মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে অনুষ্ঠানকে সার্থক করেন, মাননীয় উপাচার্য বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রফেসর ড.মোঃ ছাদেকুল আরেফিন ।
সভাপতিত্ব করেন, বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের মাননীয় পুলিশ কমিশনার জনাব মোঃ শাহাবুদ্দিন খান বিপিএম-বার।
প্রধান অতিথি মহোদয় বলেন, জনগণের সাথে সরাসরি কাজ করে একমাত্র পুলিশ বাহিনী। স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশ হিসেবে পুলিশ বাহিনীর অত্যন্ত বড় ত্যাগ রয়েছে। কমিউনিটি পুলিশিং এর কনসেপ্ট এর যথাযথ ব্যবহারে পুলিশ ও জনতার মাঝে একটি আস্থার সেতু নির্মাণ করার মাধ্যমে বাংলাদেশ পুলিশের সেবাকে জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছাতে সহায়তা করবে।
কমিউনিটি পুলিশিং কার্যক্রম জোরদারের কারণেই বরিশাল মেট্রোপলিটন এলাকায় অপরাধের মাত্রা কম রয়েছে বলে আমি মনে করি।
মানবাধিকার এবং আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির উন্নয়ন না হলে দেশের উন্নতি আশা করা যায় না। কমিউনিটি পুলিশিং ব্যবস্থাকে সামাজিক ব্যাবস্থার অংশ করে এক যোগে কাজ করে দেশকে সমৃদ্ধির দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে।
সভাপতি মহোদয়, বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ, কমিউনিটি পুলিশ ফোরাম সহ বরিশালের আপামর জনগণকে অত্যন্ত কৃতজ্ঞতা চিত্তে শুভেচ্ছা ও শুভকামনা জানিয়ে বক্তব্যে বলেন, স্বাধীন বাংলাদেশের ঊষালগ্নেই বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন – “তোমরা ব্রিটিশ পুলিশ নও, তোমরা পাকিস্তানের পুলিশ নও, তোমরা হবে আমার স্বাধীন বাংলাদেশের জনগণের পুলিশ ।” তাইতো জনবান্ধব পুলিশ গঠনে “জনতাই পুলিশ,পুলিশই জনতা” , “মুজিব বর্ষের মূলমন্ত্র -কমিউনিটি পুলিশিং সর্বত্র ” এই মূলমন্ত্রে দীক্ষিত হয়ে সম্প্রীতির বাংলাদেশকে আরও মজবুত করার লক্ষে আমরা এসেছি কমিউনিটি পুলিশিং আন্দোলনকে সমাজের সর্বস্তরে ছড়িয়ে দিতে।
আমার দূর্ভাগ্য যে মুক্তিযুদ্ধের সময় আমি যুবক ছিলাম না, কিশোর ছিলাম না, আমি যুদ্ধে যেতে পারিনি। মুক্তি যুদ্ধে অংশগ্রহণের মতো মহিমান্বিত, সম্মানিত মর্যাদার আর কিছু হতে পারে না।
যার ডাকে সাড়া দিয়ে, যেই চেতনা নিয়ে আমরা মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলাম, সেই চেতনা, সেই অসাম্প্রদায়িক বাংলা গড়ার আহ্বান মুছে যায় নি। সেই মুক্তিযুদ্ধের চেতনা সম্প্রীতির বাংলাদেশকে আরও মজবুত করার জন্য যদি সত্যি সত্যি বঙ্গবন্ধুর আদর্শের মানুষ হই, যদি মুক্তিযোদ্ধাদের শ্রদ্ধা জানাতে চাই, সেই মুক্তিযুদ্ধের চেতনার ভাবশিষ্য হিসেবে, বঙ্গবন্ধুর আদর্শের ভাবশিষ্য হিসেবে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার মানুষ তথা একটি মহান পেশার মানুষ হিসেবে জনগণের প্রতি আস্থার প্রতীক হিসেবে আমরা প্রতিটি নাগরিক স্ব-স্ব অবস্থান থেকে একেকজন মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে কাজ করে এই দেশকে আরও সমৃদ্ধির দিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া সম্ভব তাছাড়া মানুষ যতবেশি পুলিশের প্রতি আস্থা আনবে ততবেশি পুলিশ তথ্য পাবে
মর্মে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন ।
সমাবেশে বিশেষ অতিথি অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার বিএমপি জনাব প্রলয় চিসিম বলেন, সবাই বাংলাদেশের দিকে তাকিয়ে আছে। অতিদ্রুত সময়ে এই বাংলাদেশ সকল দেশকে পিছনে ফেলে সমৃদ্ধির দিকে এগিয়ে নিয়ে যাবে। আমাদের সামনে অনেক মেগা প্রজেক্ট রয়েছে। সেই লক্ষে পৌঁছাতে বাংলার সমাজের প্রতিটি মানুষকে আইন মান্যকারী সুনাগরিক হয়ে ধৈর্য ও শৃঙ্খলার সাথে এগিয়ে যেতে হবে। সেন্স অব সিকিউরিটি যেনো আমাদের জনগণের মধ্যে কাজ করে সেই মানসিকতা তৈরি করতে হবে। তাহলেই আমরা শীর্ষে এগিয়ে যেতে পারবো।
বিশেষ অতিথি’র বক্তব্যে, শহিদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত প্রেসক্লাব সভাপতি জনাব মানবেন্দ্র বটব্যল কমিউনিটি পুলিশিং এর সাফল্য কামনা করে বলেন, কমিউনিটি পুলিশিং, বিট পুলিশিং ধ্যান ধারণা সাথে নিয়ে নাগরিকদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে।
এ-সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন, যুদ্ধাহত বিশিষ্ট বীর মুক্তিযোদ্ধা জনাব এমজি কবির ভুলু, সিও র্যাব ০৮ জনাবা আতিকা ইসলাম ,উপ -পুলিশ কমিশনার (সদর দপ্তর)জনাব আবু রায়হান মোহাম্মদ সালেহ,পুলিশ সুপার নৌ পুলিশ বরিশাল জনাব মোঃ কফিল উদ্দিন, উপ -পুলিশ কমিশনার দক্ষিণ বিএমপি জনাব মোঃ মোকতার হোসেন পিপিএম-সেবা,উপ -পুলিশ কমিশনার ট্রাফিক বিএমপি জনাব মোঃ জাকির হোসেন মজুমদার পিপিএম,উপ -পুলিশ কমিশনার উত্তর বিএমপি জনাব মোঃ খাইরুল আলম,উপ -পুলিশ কমিশনার বিএমপি সাপ্লাই এন্ড লজিস্টিকস জনাব খান মুহাম্মদ আবু নাসের, উপ -পুলিশ কমিশনার বিএমপি গোয়েন্দা শাখা জনাব মোঃ মনজুর রহমান পিপিএম বার, জনাব একে এম জাহাংগীর(বিজ্ঞ পিপি)জেলা ও দায়রা জজ আদালত বরিশাল, সভাপতি সম্পাদক পরিষদ (প্রাক্তন সভাপতি শহিদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত প্রেসক্লাব) জনাব কাজি নাসিরুদ্দিন বাবুল, সভাপতি বরিশাল মেট্রোপলিটন প্রেসক্লাব জনাব মোঃ আবুল কালাম আজাদ,
বরিশাল জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি জনাব এ্যাড আফজালুর করিম, গোরাচাঁদ সড়ক বরিশাল, জনাব গাজি নাইমুল ইসলাম লিটু প্যানেল মেয়র, প্রফেসর ইমানুল হাকিম সাবেক অধক্ষ বি এম কলেজ, ডাঃ এস এম রিয়াজুল ইসলাম মোল্লা,জনাব মোঃ কামাল চৌধুরী সভাপতি বন্দর থানা কমিউনিটি পুলিশিং কমিটি, রিফাত জাহান তাপসী সভাপতি এয়ারপোর্ট থানা কমিউনিটি পুলিশিং।
এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, সুশীল সমাজের সর্বস্তরের প্রতিনিধিবৃন্দ, বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের সর্বস্তরের কর্মকর্তা ও সদস্যবৃন্দ।

Add Comment